• আজ- শুক্রবার, ২৪ মে ২০২৪, ০৩:৪৭ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম:
শ্যামনগরে সিএনআরএস এর উদ্যোগে আন্তর্জাতিক জীববৈচিত্র্য দিবস পালিত মুন্সিগঞ্জ মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে কমিটি গঠনে অনিয়মের অভিযোগ শ্যামনগরে রাস্তা সংস্কারের দাবিতে ইয়ুথদের রোড শো ও স্মারকলিপি প্রদান বোর্ড ফি মানে না নেকজানিয়ার প্রধান শিক্ষক শিবাশীষ শ্যামনগরে সিসিডিবির বাস্তবায়নে ঝুঁকিপূর্ণ এলাকায় পানির ড্রাম বিতরণ শ্যামনগরে অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনায় দুই যুবকের মৃত্যু কালিগঞ্জে বজ্রপাতে এক কিশোরের মৃত্যু জেলা আইনশৃঙ্খলা কমিটির সভা অনুষ্ঠিত শ্যামনগরের মুন্সীগঞ্জে আন্তর্জাতিক শ্রমিক দিবস পালিত  শ্যামনগরে গৃহপালিত পশু পাখি পালন ও ক্ষুদ্র ব্যবসা বিষয়ক কর্মশালা 

শ্যামনগরের গাবুরাতে আবারো নদী ভাঙন, আতঙ্কে এলাকাবাসী 

রিপোর্টারঃ / ৪৯৫ বার ভিজিট
আপডেটঃ শনিবার, ৫ আগস্ট, ২০২৩

শ্যামনগর সাতক্ষীরা প্রতিনিধি:সাতক্ষীরার শ্যামনগরে গাবুরা ইউনিয়নে আবারোও নদী ভাঙন দেখা দিয়েছে। বুধবার (২ আগস্ট) সকাল থেকে খোলপেটুয়া নদী সংলগ্ন গাবুরা ইউনিয়নের ৯নং সোরা গ্রামে চর এলাকায় এই ভাঙন দেখা দেয়। পূর্ণিমার জোয়ারে ও বায়ুচাপ পার্থক্যের আধিক্যের প্রভাবে বিচ্ছিন্ন দ্বীপ ইউনিয়ন গাবুরায় ৫০০ মিটার মত এলাকা জুড়ে নদীর বেড়িবাঁধের চরে ভয়াবহ ভাঙন সৃষ্টি হয়েছে।গাবুরার গ্রামের মনিরুল ইসলাম বলেন, আমাদের যে বেড়িবাঁধ তা সব সময় ভয়ে থাকতে হয়। কখন নদী ভেঙে আমরা ভেসে যাই। সেই ভয়ে কবে এই আতঙ্ক থেকে মুক্তি পাবো।স্থানীয় ইউপি সদস্য মঞ্জুর হোসেন জানান, সোরা গ্রামের হাসান মালীর বাড়ি সংলগ্ন প্রায় ৫০০ মিটার এলাকায় ভেঙে নদী ভাঙ্গন শুরু হয়েছে। বড় বড় মাটির স্তূপ ও গাছপালা নদীতে চলে যাচ্ছে। এতে আমরা আতঙ্কিত হয়ে পড়ছি ।গাবুরা ইউনিয়নের ইউপি চেয়ারম্যান জি.এম মাসুদুল আলম জানান, ওই এলাকায় খোলপেটুয়া বেড়িবাঁধটি চর থেকেও খানিকটা দূরে। চর ভেঙে বেড়িবাঁধের দিকে এগিয়ে যাচ্ছে। এ ছাড়া বাঁধটি খুবই জরাজীর্ণ অবস্থা। ভাঙন এভাবে চলতে থাকলে স্বল্প সময়ে বেড়িবাঁধ ভেঙে এলাকাটি পানিতে তলিয়ে যেতে পারে। এতে করে গাবুরার বহু মানুষ চরম ভোগান্তিতে পড়বে। স্থানীয়রা বিভিন্নভাবে বাঁধটি মেরামতের চেষ্টা করছে। পানি উন্নয়ন বোর্ড এখনই পদক্ষেন না নিলে যে কোন সময় ভয়াবহ বিপদ হতে পারে।সাতক্ষীরা পানি উন্নয়ন বোর্ড পোল্ডার-১ এর নির্বাহী প্রকৌশলী মোঃ সালাউদ্দিন জানান, সোরা গ্রামের পাশে দৃষ্টিনন্দন এলাকায় কিছুদিন আগে ভাঙনের সময় বেশকিছু জিওব্যাগ পাঠানো হয়েছিল। সেগুলো বেশির ভাগ অব্যবহৃত থাকায় তা দিয়ে ভাঙন রোধের কাজ চলছে। এ ছাড়া নতুন করে আরও কিছু জিওব্যাগ পাঠানো হবে। স্থানীয় জনপ্রতিনিধি ও পানি উন্নয়ন বোর্ড ভাঙন রোধে কাজ করছে।

add 1


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরো খবর

আজকের দিন-তারিখ

  • শুক্রবার (রাত ৩:৪৭)
  • ২৪শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
  • ১৬ই জিলকদ, ১৪৪৫ হিজরি
  • ১০ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ (গ্রীষ্মকাল)